ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনসহ ৯ পৌরসভার ডিজিটাল নাগরিক সেবার উদ্বোধন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ময়মনসিংহঃ নাগরিক সেবাগুলো ডিজিটাল পদ্ধতিতে মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনসহ দেশের ৯টি পৌরসভায় ডিজিটাল পৌরসেবার কার্যক্রম উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রীর তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।

রোববার (২০ অক্টোবর) সকালে রাজধানীর কম্পিউটার কাউন্সিল ভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্স এর মাধ্যমে জনগণের জন্য সহজে নাগরিক সেবা প্রাপ্তি নিশ্চিত করতে একার্যক্রম উদ্বোধন করেন।

এ কর্মসূচীতে ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনসহ আরো ৯টি পৌরসভা হচ্ছে- ফরিদপুর, গোপালগঞ্জ, নাটোর, ঝিনাইদহ, টুঙ্গিপাড়া, পীরগঞ্জ, সিংড়া, তারাব ও রামগতি।

এই কর্মসূচীর আওয়াতায় এখন থেকে ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের অনলাইনে ৫টি সেবা যথা হোল্ডিং ট্যাক্স, অনলাইন ওয়াটার বিলিং সার্ভিসেস, অনলাইনে সিটি কর্পোরেশন সার্টিফিকেট সার্ভিসেস, অটোমেটেড প্রোপার্টি ম্যানেজমেন্ট সার্ভিসেস, ই- ট্রেড লাইসেন্স সার্ভিসেস ইত্যাদি।

ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন (মসিক)সহ দেশের আরো ৯টি পৌরসভায় মোট সাড়ে ২০ লাখ নাগরিক, প্রায় দেড় লাখ হোল্ডিং অনলাইনে সেবার আওয়াতায় আসবে।

তন্মধ্যে, ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের মোট ৮লাখ ১৩ হাজার নাগরিক এবং ৫২ হাজার ৬০টি হোল্ডিং, প্রায় ৮টাজার পানির সংযোগ, ১২ হাজার ৬শত ট্রেড লাইসেন্স ও ৩৯৬টি প্রোপার্টি অনলাইনে নাগরিক সেবা নিতে পারবেন। এই সেবাগুলো পূর্বে ম্যানুয়াল পদ্ধিতিতে প্রদান করা হতো।

ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে এ প্রকল্পের আওতায় উন্নয়নকৃত ডিজিটাল মিউনিসিপালিটি সার্ভিস সিস্টেম পাইলটিং এর মাধ্যমে বর্ণিত ০৫টি সেবা সিটি কর্পোরেশনের নাগরিকগণকে অনলাইনে প্রদান করা সম্ভব হবে। এ লক্ষে ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের নাগরিকগণের হালনাগাদ ডেটা এন্ট্রি আপলোড এর কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। এর ফলে নাগরিকগণ ঘরে বসেই বর্ণিত ০৫টি সেবা গ্রহণ করতে পারবেন।

এতে করে স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা নিশ্চিত করার পাশাপাশি মানসম্মত সেবা প্রদান করা সম্ভব হবে এবং নাগরিকবৃন্দের টাইম, ভিজিট, কস্ট (টিভিসি) কম লাগবে। পাশাপাশি জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল বাস্তবায়নে এটি গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করবে।

অনুষ্ঠানে তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় বলেন, ২০২১ সালের মধ্যে দেশের ৩’শ উপজেলায় ডিজিটাল পৌরসেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে। আগামীতে নাগরিক পরিসেবাগুলো পুরোপুরি ডিজিটালাজেশনের চেষ্টা করছে সরকার। ডিজিটাল বাংলাদেশের বাস্তবতায় এখন নাগরিক সেবার অনেক কিছুরই সমাধান মিলছে অনলাইনে। জনগণের জন্য সহজে নাগরিক সেবা প্রাপ্তি নিশ্চিত করতে, এবার আরো একধাপ এগিয়ে গেলো সরকারের তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগ।