ময়মনসিংহে সংস্কৃতি কর্মীদের নিরাপত্তায় ৫ দাবি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ময়মনসিংহঃ ময়মনসিংহ নগরীর টাউন হল প্রাঙ্গণে সন্ধ্যার পর সংস্কৃতি কর্মীদের প্রশাসনের বসার নিষেধাজ্ঞার প্রতিবাদে স্থানীয় সংস্কৃতি কর্মীদের মুক্ত আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

মঙ্গলবার রাতে নগরীর টাউনহল প্রাঙ্গনে সংস্কৃতি অঙ্গনের বিভিন্ন অসংগতি নিয়ে মুক্ত আলোচনা সভার আহ্বান করেন মুক্তবাক থিয়েটারের সাধারণ সম্পাদক তরুণ নাট্যশিল্পী হাসিবুর রহমান তুষার।

 

আলোচনা সভায় সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত সিদ্ধান্ত নেয়াহয়:-

 

(১) সংস্কৃতি কর্মীদের একমাত্র বসার স্থান টাউন হল প্রাঙ্গণ, যেখানে সকল সাংস্কৃতিক কর্মীদের প্রশাসনিক নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণ।

 

(২) শহীদ মিনার অবমুক্তকরণ(বাণিজ্যিক মেলা মুক্ত করণ)

 

(৩) এড. তারেক স্মতি অডিটোরিয়াম ব্যবহারের উপযোগীকরণ।

 

(৪) সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের জন্য টাউন হলের ভাড়া শিথিলকরণ।

 

(৫) সংস্কৃতি-কর্মী, বুদ্ধিজীবী তথা শহরের সম্মানিত ব্যক্তিবর্গের মৃতদেহ শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে সম্মান প্রদর্শনপূর্বক পুষ্পস্তবক অর্পণের উপযোগীকরণ সহ বিভিন্ন বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।

 

উক্ত আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য নাট্যজন শাহাদাত হোসেন খান হিলু, ভারত-বাংলাদেশ সম্প্রতি সংস্থার কো-চেয়ারম্যান ডা. এইচ.এ. গোলন্দাজ তারা, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ, ময়মনসিংহ জেলা শাখার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী আজাদ জাহান শামীম, ময়মনসিংহ লোককৃষ্টি সংস্থার সাধারণ সম্পাদক এড. এম.এ. কাশেম, বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের ময়মনসিংহ বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আজহার হাবলু, আনোয়ারা শিল্প আসরের সভাপতি কবি আনোয়ারা সুলতানা, ছায়ানট সাংস্কৃতিক সংস্থা’র সভাপতি শরীফ মাহফুজুল হক আপেল, বহুরূপী নাট্য সংস্থা’র অন্যতম সদস্য ওয়াহাব মাহমুদ রমজান, অনসাম্বল থিয়েটারের সভাপতি আবুল মনসুর, মুক্তবাক থিয়েটারের সভাপতি নূছরাত ইমাম বুলটি, চরৈবতি সাংস্কৃতিক সংস্থা’র পরিচালক ওবায়দুল হক অপু, সুর-তাল-লয় এর সংগীত পরিচালক আমিরুল ইসলাম সাগর সহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের কর্মকর্তাগণ ও স্থানীয় সাংস্কৃতিক কর্মীবৃন্দ।

 

উল্লেখ্য, সারাদিনের কর্মব্যস্ততা শেষে টাউন হল কিংবা শিল্পকলায় ময়মনসিংহের সাংস্কৃতিক কর্মীরা মুক্ত আলোচনায় মিলিত হন। গত ৪ নভেম্বর সন্ধ্যার পর সাংস্কৃতিক কর্মীরা টাউন হলে আড্ডা দেয়ার সময় পুলিশ প্রশাসনের একজন কর্মকর্তা জানায় এখানে আড্ডা দেয়া যাবে না। তার প্রেক্ষিতেই উক্ত আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।